পশ্চিমবঙ্গের ২০২৩ পঞ্চায়েত নির্বাচন কি পৃথক হতে চলেছে ?

উত্তরাপথ

পশ্চিমবঙ্গের ২০২৩ এর পঞ্চায়েত নির্বাচন কি ২০১৮ পঞ্চায়েত নির্বাচন থেকে পৃথক হতে চলেছে ? পঞ্চায়েত রাজনীতিতে বিরোধী দলগুলির অবস্থানের উপর নির্ভর করবে পঞ্চায়েত নির্বাচনের গতিপ্রকৃতি । রাজ্য নির্বাচন কমিশনের দেওয়া তথ্য অনুয়ায়ী পশ্চিমবঙ্গে ৮ জুলাই নির্ধারিত ত্রি-স্তরীয় পঞ্চায়েত নির্বাচনে প্রায় ৭৪,০০০ আসনের জন্য মোট ২.৩৬.৪৬৪ টি মনোনয়ন দাখিল করা হয়েছে।

সর্ব শেষ পাওয়া তথ্য অনুসারে ক্ষমতাসীন তৃণমূল কংগ্রেস ৮৫,৮১৭ টি মনোনয়ন জমা দিয়েছে এবং বিজেপি ৫৬,৩২১ প্রার্থী নিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে  সিপিআই(এম) মনোনীত প্রার্থীরা ৪৮,৬৪৬টি আসনে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন, তারপরে কংগ্রেস ১৭,৭৫০ স্বতন্ত্র ১৬,২৯৩, ফরোয়ার্ড ব্লক ১,৫৯৫ এবং অন্যান্য ১০,০৪২ আসনে প্রার্থী দিয়েছে।

মোট মনোনয়নের মধ্যে, ৪,৯৩২ টি  জেলা পরিষদের জন্য এবং ৩৫,৪৪৫ টি পঞ্চায়েত সমিতিগুলির জন্য দাখিল করা হয়েছে গ্রাম পঞ্চায়েতের জন্য মোট ১,৯৬,০৮৭ টি  মনোনয়ন দাখিল করা হয়েছে,বলে খবর।

প্রায় ৫.৬৭ কোটি ভোটার জেলা পরিষদ, পঞ্চায়েত সমিতি এবং গ্রাম পঞ্চায়েতে তাদের প্রতিনিধি বাছাই করার জন্য তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবে। রাজ্য নির্বাচন কমিশনের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুসারে, টিএমসি কোনও বিরোধিতা ছাড়াই মোট ৭৩,৮৮৭ টির মধ্যে প্রায় ৭০০০টি (৯.৪৭%) আসন পেয়েছে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য গত পঞ্চায়েত নির্বাচনে তৃণমূল একা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় ৩৪ শতাংশ আসন পেয়েছিল। এবারের নির্বাচনে, তারা মোট ৬৩,২৯৯ গ্রাম পঞ্চায়েত আসনের মধ্যে ৬,২৩৮ (৯.৭%), ৯.৭৩০ টি পঞ্চায়েত সমিতির আসনের মধ্যে ৭৫৯ টি (৭.৮%) এবং ৯২৮ টি (০.৮৬%) জেলা পরিষদের আসনের মধ্যে কোনও প্রতিদ্বন্দ্বী ছাড়াই জিতেছে।

খবরটি শেয়ার করুণ

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন


মতুয়া আন্দোলনের এক মনোগ্রাহী ভাষ্য

অরবিন্দ পুরকাইত: আপাত বা গভীর কোনও স্তরেই তেমন কিছু তফাৎ পরিলক্ষিত না হলেও, বর্ণবাদী সমাজে একই পাড়ায় একেবারে প্রায় পাশাপাশি কেবল বিশেষ বিশেষ ঘরে জন্মানোর নিমিত্ত - শিক্ষাদীক্ষা পরের কথা – ভূমিষ্ঠ হওয়া থেকেই আজীবন একজন শ্রদ্ধা-ভক্তি-প্রণাম পাওয়ার অদৃশ্য শংসাপত্রের অধিকারী আর অন্যজনের সেবা-শ্রদ্ধা-ভক্তির অদৃশ্য দাসখতের দায়বদ্ধতা! কেন-না সৃষ্টিলগ্নেই একজন প্রজাপতি ব্রহ্মার মুখনিসৃত আর অন্যজন পদজ যে! সুতরাং মুখ থাকবে সবার উপরে, সবার নিচে পা – এতে অস্বাভাবিকতা বা আশ্চর্যের তো কিছু নেই! কিন্তু কেবল সেবা-শ্রদ্ধাতেই সব মিটে .....বিস্তারিত পড়ুন

১ কোটি টাকার মানহানির মামলা প্রাক্তন CJI রঞ্জন গগৈয়ের বিরুদ্ধে

উত্তরাপথ: গুয়াহাটির একটি স্থানীয় আদালতে আসাম পাবলিক ওয়ার্কসের (এপিডব্লিউ) সভাপতি অভিজিৎ শর্মার রাজ্যসভার সাংসদ এবং ভারতের প্রাক্তন প্রধান বিচারপতি (সিজেআই) রঞ্জন গগৈয়ের বিরুদ্ধে ১কোটি টাকার মানহানির মামলা করেছে।  অভিজিৎ শর্মার অভিযোগ রঞ্জন গগৈ তার আত্মজীবনী জাস্টিস ফর এ জাজে  তার বিরুদ্ধে বিভ্রান্তিকর এবং মানহানিকর বিবৃতি প্রকাশ করেছে । তাই তিনি প্রকাশক গগৈ এবং রুপা পাবলিকেশন্সের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা দায়ের করেন  এবং কোনও বই প্রকাশ, বিতরণ বা বিক্রি করা থেকে বিরত রাখার জন্য অন্তবর্তী .....বিস্তারিত পড়ুন

Scroll to Top