West Bengal : ২০২৪ এইচএস পরীক্ষার সময়সূচী ঘোষণা করল পরিষদ

উত্তরাপথ

পশ্চিমবঙ্গ উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা পরিষদ (WBCHSE) ২০২৪ পরবর্তী শিক্ষাবর্ষের পরীক্ষার তারিখ প্রকাশ করেছে। সময়সূচী অনুসারে, পরীক্ষা ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪-এ শুরু হবে এবং ২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪-এ শেষ হবে৷ শিক্ষার্থীরা অফিসিয়াল ওয়েবসাইট – wbchse.wb.gov.in থেকে WBCHSE ক্লাস ১২  টাইম টেবিল ডাউনলোড করতে পারে ৷

দুপুর ১২টা থেকে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে এবং চলবে বিকাল ৩টা ১৫ মিনিট পর্যন্ত। পরীক্ষার সময়কাল হবে তিন ঘণ্টা এবং শিক্ষার্থীরা প্রশ্নপত্র পড়ার জন্য অতিরিক্ত পনের মিনিট সময় পাবে। বৃত্তিমূলক বিষয়ের জন্য শিক্ষার্থীরা প্রশ্নপত্র পড়ার জন্য অতিরিক্ত পনের মিনিট সময় পাবে না।

পরীক্ষার সময়সূচী

ফেব্রুয়ারী ১৬, ২০২৪ বাংলা (A), ইংরেজি (A), হিন্দি (A), নেপালি (A), উর্দু, সাঁওতালি, ওড়িয়া, তেলেগু, গুজরাটি, পাঞ্জাবি

১৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪ হেলথ কেয়ার, অটোমোবাইল, সংগঠিত খুচরা বিক্রেতা, নিরাপত্তা, আইটি এবং আইটিইএস, ইলেকট্রনিক্স, পর্যটন এবং আতিথেয়তা, নদীর গভীরতানির্ণয়, নির্মাণ, পোশাক, সৌন্দর্য এবং সুস্থতা, কৃষি, পাওয়ার- ভোকেশনাল বিষয়

১৯ ফেব্রুয়ারী 19, ২০২৪ ইংরেজি (B), বাংলা (B), হিন্দি (B), নেপালি (B), বিকল্প ইংরেজি

২০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ অর্থনীতি

২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪  পদার্থবিদ্যা, পুষ্টি, শিক্ষা, হিসাববিজ্ঞান

২২ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪ কম্পিউটার বিজ্ঞান আধুনিক কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশন, পরিবেশগত অধ্যয়ন, স্বাস্থ্য ও শারীরিক শিক্ষা, সঙ্গীত, ভিজ্যুয়াল আর্টস

২৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪ বাণিজ্যিক আইন এবং নিরীক্ষা, দর্শন, সমাজবিজ্ঞানের প্রাথমিক

২৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪ রসায়ন, সাংবাদিকতা এবং গণযোগাযোগ, সংস্কৃত, ফারসি, আরবি, ফরাসি

২৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪ গণিত, মনোবিজ্ঞান, নৃবিজ্ঞান, কৃষিবিদ্যা, ইতিহাস

২৮ ফেব্রুয়ারী , ২০২৪ বায়োলজিক্যাল সায়েন্স, বিজনেস স্টাডিজ, পলিটিক্যাল সায়েন্স

২৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪ পরিসংখ্যান, ভূগোল, খরচ এবং কর, গৃহ ব্যবস্থাপনা এবং পারিবারিক সম্পদ ব্যবস্থাপনা

খবরটি শেয়ার করুণ

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন


Diabetes Treatment: রক্তে শর্করা স্থিতিশীল করতে ডালিয়া ফুলের নির্যাস কার্যকর

উত্তরাপথঃ ডায়াবেটিস নিয়ে গবেষণার ক্ষেত্রে একটি উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি হয়েছে।সম্প্রতি গবেষণায় ওটাগো বিশ্ববিদ্যালয়ের (University of Otago)নেতৃত্বে বিজ্ঞানীরা ক্লিনিকাল ট্রায়ালের মাধ্যমে আবিষ্কার করেছে যে ডালিয়া ফুলের পাপড়ির নির্যাস ডায়াবেটিসে আক্রান্ত ব্যক্তিদের রক্তে শর্করা স্থিতিশীল করতে সাহায্য করতে পারে। সেন্টার ফর নিউরোএন্ডোক্রিনোলজির একজন সহযোগী অধ্যাপক আলেকজান্ডার টুপসের( Alexander Tups) নির্দেশনায়, দলটি খুঁজে পেয়েছে যে, উদ্ভিদের একটি অণু, যা মস্তিষ্কে কাজ করে এবং রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রন করার জন্য শরীরের ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে।প্রসঙ্গত ডায়াবেটিস হল একটি দীর্ঘস্থায়ী বিপাকীয় ব্যাধি যা অপর্যাপ্ত ইনসুলিন উৎপাদনের কারণে রক্তে শর্করার মাত্রা অত্যাধিক বেড়ে যায়। .....বিস্তারিত পড়ুন

বিশ্ব মানবতার আলোয় যৌবনের পূজারী নজরুল

অসীম পাঠকঃ জীবনের প্রয়োজনে যুগের পরিবর্তন যেমন সত্য তেমনি যুগের প্রয়োজনে জীবনের আবির্ভাব অমোঘ। এই বাস্তব সত্যটিকে আরও গভীর ভাবে উপলব্ধি করার কাল এসেছে। তারই অভ্যাস অনুরণিত হচ্ছে দিকে দিকে। সর্বত্র আলোড়ন উঠেছে বিদ্রোহী কবির জীবন দর্শন নিয়ে , তাঁর আগুন ঝরা কবিতা নিয়ে। সর্বহারার কবি নজরুল ইসলাম। যারা বঞ্চিত অবহেলিত , নিপীড়ন আর শোষণের জ্বালা যাদের বুকে ধিকি ধিকি জ্বলে বুকেই জুড়িয়ে যাচ্ছিল দাহ, তাদের মূক বেদনার ভাষা দিয়েছিলেন নজরুল।পদদলিত পরাধীন জাতির বুকে স্বাধীনতার তৃষ্ণা জাগিয়েই তিনি শান্ত থাকেননি , দেশের সমাজের বুক থেকে মানুষে মানুষে বিভেদ ব্যাবধান দূর করবার ব্রত ও গ্রহন করেছিলেন। তিনিই প্রথম কবি যিনি সমাজের সমাজপতি দের ছলনার .....বিস্তারিত পড়ুন

সম্পাদকীয়

বিশ্ব উস্নায়ন এবং তাকে কেন্দ্র করে জলবায়ু পরিবর্তন একবিংশ শতাব্দীর অন্যতম বড় চ্যালেঞ্জ। এটি  ধীরে ধীরে একাধিক উপায়ে মানব সমাজকে ব্যাপকভাবে প্রভাবিত করছে এবং অদূর ভবিষ্যতে এটি প্রায় অনিয়ন্ত্রিত হয়ে যাবে বলে মনে করা হচ্ছে।ইতিমধ্যে এটি আমাদের পরিবেশ, অর্থনীতি এবং আমাদের জীবন যাত্রার উপর ব্যাপক ভাবে প্রভাব দেখাতে শুরু করেছে ।সদ্য হয়ে যাওয়া হিমাচল প্রদেশের বন্যা আমাদের সামনে বেশ কিছু প্রশ্ন তুলে দিল । এবছর হিমাচল প্রদেশে বর্ষাকালে রেকর্ড পরিমাণে বৃষ্টিপাত হয়েছে ,যা বিগত কয়েক বছরের তুলনায় বহু গুণ বেশী।  ভারতের আবহাওয়া অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, হিমাচল প্রদেশে ১ জুলাই থেকে ১২ জুলাই পর্যন্ত গড় বৃষ্টিপাত হয়েছে ২৪৯.৬ মিমি যা স্বাভাবিক গড় ৭৬.৬ মিমি থেকে প্রায় ৭০% বেশী .....বিস্তারিত পড়ুন

ব্যয় বৃদ্ধির কারণে বাড়ছে বাংলাদেশে ইলিশের দাম, প্রভাব রাজ্যেও

উত্তরাপথঃ বাংলাদেশ ও ইলিশ এই দুটি নাম একে অপরের পরিপূরক মনে হলেও বাস্তব কিন্তু বলছে অন্য কথা। সূত্র মাধ্যমে পাওয়া খবরে জানা যাচ্ছে  প্রকৃতির অপার দান হলেও শিকার থেকে শুরু করে বাজারজাত হওয়া পর্যন্ত ব্যয় বৃদ্ধির কারণেই বাড়ছে বাংলাদেশে ইলিশের দাম। এর সঙ্গে মধ্যস্বত্বভোগীদের লাভের অঙ্ক যোগ হয়ে তা চলে যাচ্ছে ধরাছোঁয়ার বাইরে।পরিস্থিতি এমন যে গরিব তো দূর থাক মধ্যবিত্তের পাতেও এখন আর জুটছে না ইলিশ। বুধবার বরিশালের পাইকারি বাজারে এক কেজি সাইজের ইলিশ বিক্রি হয় ৬০ হাজার টাকা মন দরে। ৪২ কেজিতে মন হিসাবে প্রতি কেজির দাম পড়ে প্রায় সাড়ে ১৪শ টাকা। খুচরা বাজারে গিয়ে যা বিক্রি হয় ১৬ থেকে ১৮শ টাকা। যে কারণে জাতীয় এই মাছ এখন শুধু বিত্তশালীদের খাদ্যে পরিণত হয়েছে। .....বিস্তারিত পড়ুন

Scroll to Top