হিউম্যানয়েড রোবট ARTEMIS রেডি পরবর্তী RoboCup-এর জন্য

অনয় কিরণ মাহাতো

ছবি: Prof. Dennis Hong এর টুইটার থেকে

কেমন যেন লাগে রোবট এর কথা শুনলে। তারপরে আবার হিউম্যানয়েড, ভাবা যায়। হিউম্যানয়েড রোবট এক জটিল anthropomorphic কৃত্রিম মেশিন যা রোবোটিক্স, লোকোমোশন এবং কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা (আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স) এই হিউম্যানয়েড রোবর্ট এর বিকাশকে ত্বরান্বিত করেছে। ১৮১০ সালে জার্মানির ফ্রেডলিচ কাউফম্যানন প্রথম তৈরি করেছিলেন এক ট্রাম্পেট সৈনিক রোবর্ট। যদিও ১২০৬ সালে প্রথম প্রোগ্রামেবল হিউম্যানয়েড রোবট তৈরি করেন আরবের একজন মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার আল-যাজরি। এরপর লিওনার্দো দা ভিঞ্ছির আদলে জাপানের ওসাকা ইউনিভার্সিটির প্রোফেসর ঈশিগুর পরীক্ষাগারে তৈরি হয় এক অভিনব মানাবিক রোবট। যেখানে একজন জীবন্ত মানুষের মত লিওনার্দো দা ভিঞ্ছির আদলে তৈরি হওয়া রোবটটিকে  নড়াচড়া করতে দেখা যাচ্ছে। এরপরও অনেক জনপ্রিয় হিউম্যানয়েড রোবটের কথা আমরা শুনেছি যেমন Ocean One (underwater), Atlas (rescue task), ROBEAR (support for old age people), Pepper (funny), Sophia (News anchor) আরোও কত কিছু।

ছবি: লিওনার্দো দা ভিঞ্ছির হিউম্যানয়েড রোবট ওসাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মিউজিয়াম থেকে তোলা।

সম্প্রতি ইউনিভার্সিটি অফ ক্যালিফোর্নিয়া লস অ্যাঞ্জেলেস এঁর (UCLA) মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়াররা তৈরি করেছেন এক আভিনব হিউম্যানয়েড রোবট “ARTEMIS” যা লম্বায় ১৪২ সেন্টিমিটার এবং ওজন ৩৮ কিলোগ্রাম। এই রোবটটি সাবলীল ভাবে ১২৬ মিটার প্রতি মিনিটে ছুটতে পার, আর ভারী লাথি (কিক) ও ঝাকুনির বিরুদ্ধে তার ভারসাম্য বজায় রাখতে পারে। এই রোবটের আর এক বিশেষত্ব হল এ নিখুত ভাবে বল কিক সহ, ডিফেন্স করতে  খুবই উপযোগী। তবে এই জাতীয় রোবট ভবিষৎতে বিপর্যয় মোকাবিলা সহ, মহাকাশ ও গাভীর সমুদ্র গবেষনায় খুব গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে।

“ARTEMIS” এর জন্মদাতা প্রফেসর ডেনিস হং ও তার সহযোগীদের কাছে আমারা কৃতজ্ঞ এত সুন্দর এক হিউম্যানয়েড খেলয়ার রোবট আবিস্কারের জন্য। আশাকরি ভবিষ্যতে আমরা আরও বেশি করে হুমানইড রোবট  উপহার পাব যা মানব সভ্যতার বিকাশে প্রত্যক্ষ ভাবে সাহায্য করবে। “ARTEMIS”  যদিও পরবর্তী ফিফা বিশ্বকাপে আম্বাপে, মেসি বা সি আর৭ এর মুখমুখি না হতে পারেন কিন্তু হং এর দল এই সামনের জুলাই মাসে ফ্রান্স এ অনুষ্ঠিত RoboCup এ অবশ্যই তার ভেল্কি দেখাবে।

সূত্র: UCLA Newsroom

কৃতজ্ঞতা স্বীকার: ড. সঞ্জিত কুমার মাহাতো

খবরটি শেয়ার করুণ

1 thought on “হিউম্যানয়েড রোবট ARTEMIS রেডি পরবর্তী RoboCup-এর জন্য”

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন


সম্পাদকীয়

এ যেন বহুদিন পর বিজেপির চেনা ছন্দের পতন। হিমাচল প্রদেশের পর কর্ণাটক কংগ্রেস নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে বিজেপির বিজয়রথকে থামিয়ে দিল ।২০১৮ পর থেকে লাগাতার হারতে থাকা একটি দল আবার ২০২৪ সাধারণ নির্বাচনে প্রাসঙ্গিক হয়ে গেল । ২২৪ সদস্যের কর্ণাটক বিধানসভায় সরকার গঠন করতে গেলে প্রয়োজন ১১৩টি আসন সেখানে কংগ্রেস একাই পেয়েছে ১৩৬টি আসন, বিজেপি পেয়েছে ৬৫ টি এবং প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী দেবগৌড়ার জেডিএস পেয়েছে ১৯টি এবং অন্যান্য ৪ টি আসন পেয়েছে। যা গতবারের তুলনায় বিজেপির ৩৯ টি আসন কমেছে এবং কংগ্রেসের বেড়েছে ৫৭টি আসন এবং জেডিএসের কমেছে ১৮ টি আসন।   কর্ণাটকে কংগ্রেসের এই সাফল্য কি রাজ্যে কংগ্রেসের শক্তিশালী সংগঠনের ফল না কি কর্ণাটকের আগের ক্ষমতাশীল বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে মানুষের ক্ষোভ । কর্ণাটকে কংগ্রেসে অনেক বড় নেতা রয়েছে।  প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি শিবকুমার দক্ষ সংগঠক। আগের মুখ্যমন্ত্রী সিদ্ধারামাইয়ার ব্যাপক জনভিত্তি রয়েছে।  ভোটের আগে বিজেপির প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জগদীশ শেট্টার এবং উপমুখ্যমন্ত্রী সাভাড়ি কংগ্রেসে যোগ দিয়ে নির্বাচনে লড়েছেন। অন্যদিকে বিজেপির প্রচারের সবচেয়ে বড় মুখ ছিলেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। বিজেপির প্রচারে সব নেতারাই মোদীর নাম করেই ভোট চেয়েছিলেন কিন্তু শেষ রক্ষা হল না ।কর্ণাটকের বিজেপি সরকারের ব্যাপক দুর্নীতি সেই সাথে কংগ্রেসের লাগাতার প্রচার যা প্রতিষ্ঠান বিরোধিতার সুরকে আরও তীব্র করেছে। তাই শুধুমাত্র মোদী ম্যাজিকের উপর ভর করে নির্বাচন জেতা যে  আর বিজেপির পক্ষে সম্ভব নয় কর্ণাটকের জনগণ চোখে হাত দিয়ে তাই দেখিয়ে দিল। .....বিস্তারিত পড়ুন

টিউমার নির্মূল এর নতুন থেরাপিউটিক যা স্থায়ীভাবে গ্যাস্ট্রিক ক্যান্সার দূর করে

উত্তরাপথ: একটি বহু-প্রাতিষ্ঠানিক গবেষণা দল একটি অভিনব ক্যান্সার থেরাপিউটিক তৈরি করেছে, অ্যান্টিবডি টুকরোগুলিকে আণবিকভাবে তৈরি করা ন্যানো পার্টিকেলগুলির সাথে একত্রিত করে, যা গ্যাস্ট্রিক ক্যান্সারে আক্রান্ত ইঁদুরের ক্যান্সারকে স্থায়ীভাবে নির্মূল করে। "হিট অ্যান্ড রান" ড্রাগ ডেলিভারি সিস্টেম, কর্নেল প্রাইম ডটস (সি' ডটস) নামে পরিচিত, এটি বিভিন্ন ধরনের ক্যান্সারের জন্য একটি বহুমুখী এবং অভিযোজনযোগ্য চিকিত্সা হিসাবে সম্ভাব্যতা দেখায়, ন্যূনতম পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া এবং বিষাক্ততার সাথে। গবেষকদের একটি বহু-প্রাতিষ্ঠানিক দল আবিষ্কার করেছে যে একটি নতুন ক্যান্সার থেরাপিউটি .....বিস্তারিত পড়ুন

Scroll to Top